1. info@www.dailybdcrimetimes.com : দৈনিক বিডি ক্রাইম টাইমস.কম :
বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ০৬:১৪ অপরাহ্ন
Title :
দুর্গত এলাকা পরিদর্শনে কলাপাড়ায় আসছেন প্রধানমন্ত্রী ত্রান নয়, টেকসই বেড়িবাঁধ ও সাইক্লোন শেল্টার চাই’ উপকূলবাসীর প্রাণের দাবি গাইবান্ধা সাদুল্লাপুরে ডলার প্রতারক চক্রের মূল হোতা নুরু মন্ডল গ্রেপ্তার ঘূর্ণিঝড় রেমালের তাণ্ডবে ডুবে গেছে দক্ষিণ অঞ্চল, উপকূলীয় ১৯টি জেলায় ক্ষতিগ্রস্ত ৪০ লাখ মানুষ ঘূর্ণিঝড় রেমাল মোকাবেলায় কলাপাড়ায় ১৫৫ আশ্রয় কেন্দ্র ও ২০ মুজিব কেল্লা প্রস্তুত ঘনঘন লোডশেডিং হওয়ায় সাধারণ মানুষের অস্বস্তি বালাসীঘাটে নৌকা থেকে পড়ে কামরুজ্জামান ১৮ নামে এক যুবক নিঁখোজ খেলা হবে সেই ভাইরাল বক্তব্যে বাউফলে খেলেই দিল এমপি গ্রুপ প্যানেল কটিয়াদী উপজেলা নির্বাচনে নতুন দুটি মুখের জয়লাভ গাইবান্ধা সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হলেন সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান

মিরপুর বধির্ত পল্লবীতে গৃহকর্মীকে নির্মমভাবে নির্যাতন

Reporter Name
  • Update Time : রবিবার, ২৬ নভেম্বর, ২০২৩
  • ৯৪ Time View

মিরপুর প্রতিনিধি:

গত ২৩ শে নভেম্বর রাতে গৃহকর্মী মরিয়মকে এলোপাতাড়ি মারধর করে প্রায় অজ্ঞান করে ফেলে। গৃহকর্মী মরিয়মের বয়স আনুমানিক ১৫ বছর। কোনরকম অসুস্থতা কাটিয়ে উঠতে না উঠতে ২৫ শে নভেম্বর আবার এলোপাথারি মারধর করে শরীরে বিভিন্ন জায়গায় নীলা ফোলা জখম করে। নারী গৃহ পরিচালিকা সাথী খাতুনর বয়স আনুমানিক (৩০) বধির্ত পল্লবী ৪ নং গেইট -কে – ১৩, একটি বাসায় কাজ করিতেন মরিয়ম।
অস্বাভাবিকভাবে মার খেয়ে যখন আর সহ্য করতে পারে না মরিয়ম একপর্যায়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায় কাউকে কিছু না বলে। তখনই এলাকার মানুষের নজরে আসে মরিয়ম। অসুস্থ মরিয়মকে এলাকাবাসী এই অবস্থায় পেয়ে প্রথমে ওই গৃহ পরিচালক মঞ্জুর এলাহী সুজন এবং সাথী খাতুন দম্পতির এক প্রতিবেশীর বাসায় গৃহকর্মী মরিয়মকে নিয়ে তার প্রাথমিকভাবে বিস্তারিত জানে। এসব কিছু শুনে এলাকার কিছু ব্যক্তি সংবাদ কর্মীকে জানায়। খবর পেয়ে সংবাদ কর্মীরা মরিয়মের কাছে এলে জানতে পারে কি নির্মমভাবে অত্যাচার সহ্য করেছে। ওই গৃহ পরিচালিকা সাথী খাতুন মূলত মরিয়মের কোন পরিবার থাকে না ঢাকাতে।
মরিয়মকে তার পরিবারের কাছ থেকে নিয়ে আসা হয়েছিল বলে সাথী খাতুনের ছোট্ট একটি এক বছরের শিশু কে কোলে রাখার জন্য এবং তার দেখাশোনার জন্য। কিন্তু মরিয়মকে দিয়ে পুরো ঘরের কাজকর্ম করানো থেকে শুরু করে নির্যাতন পর্যন্ত করতো সাথী খাতুন। এত অমানবিক নির্যাতন হবার পরও মুখ বুজে শিশু মরিয়ম তার বাসায় কাজ করতো বিগত সাড়ে তিন বছর ধরে।

কিন্তু এই অত্যাচারের মাত্রা এতটা ভয়াবহ হয়ে গেছে সহ্য করতে না পেরে ঢাকা শহর কেউ না থাকা সত্ত্বেও সে বাসা থেকে বের হয়ে যায়।

মনজুর এলাহী সুজন ও সাথী খাতুন দম্পতির মতো শিক্ষিত সমাজে এই ধরনের অত্যাচারীদের বাসায় গৃহকর্মীরা কোনভাবেই সুরক্ষিত নয়।

পরে গণমাধ্যম কর্মীদের সহায়তায় রূপনগর থানার পুলিশ আটক করে ঐ নারী সাথীকে এবং মামলা রুজু করা হবে বলে জানিয়েছেন রূপনগর থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুল মজিদ।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved
প্রযুক্তি সহায়তায়: বাংলাদেশ হোস্টিং